এবার সেভেরোদোনেৎস্ক ঘিরে ফেলার দাবি রাশিয়ার

সংবাদটি প্রকাশিত হয়েছে : বৃহস্পতিবার, মে ২৬, ২০২২ ১২:২৩:৫১ অপরাহ্ণ

চলমান বার্তা ডেস্ক
ইউক্রেনের সেভেরোদোনেৎস্ক শহর দখলে নিতে ব্যাপক হামলা চালাচ্ছে রুশ সেনারা। শহরটি চারপাশ থেকে ঘিরে ফেলার দাবি করেছে রাশিয়া। তবে, পূর্ব ইউক্রেনের একজন জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তা এ দাবি অস্বীকার করেছেন।

ইউক্রেনের ওই কর্মকর্তা বলেছেন, পূর্বাঞ্চলে ইউক্রেনের সেনাদের নিয়ন্ত্রণে থাকা একটি এলাকা থেকে গুরুত্বপূর্ণ একটি সংযোগ সড়ক এখনো দখলে নিতে পারেনি রুশ সেনারা। ওই সড়কটি দখল নিতে পারলেই সেভেরোদোনেৎস্কের সঙ্গে ইউক্রেনের অন্য শহরের যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যাবে। খবর বিবিসির।

সেভেরোদোনেৎস্ক অঞ্চলের সামরিক প্রশাসনের প্রধান শেরহি হাইদি বলেন, ‘লুহানস্কের সঙ্গে সংযোগ বিচ্ছিন্ন হয়নি।’

রাশিয়ার অন্যতম লক্ষ্য হলো সেভেরোদোনেৎস্ক দখলে নেওয়া। ইউক্রেনের অন্যতম বড় এ শহরটির উপকণ্ঠে তীব্র লড়াই চলছে। বিবিসি বলছে, রুশ সেনারা যদি সেভেরোদোনেৎস্ক থেকে বাখমুটের রাস্তাটি দখল করতে পারে, তাহলে পুরো শহরটিকে ঘিরে ফেলতে সক্ষম হবে তারা।

শেরহি হাইদি বলেন, শহরের দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের রাস্তায় লড়াই চলছে। তবে, এখনও শহরে মানবিক সাহায্য পৌঁছানো যাচ্ছে।

শেরহি বলেছে, সেভেরোদোনেৎস্কের পরিস্থিতি খুব খারাপ। ২৪ ঘণ্টা সেখানে গোলাবর্ষণ করা হচ্ছে। এ ছাড়া, রুশ সেনারা মর্টারের গোলাসহ নানা যুদ্ধাস্ত্র নিয়ে হামলার পাশাপাশি বিমান হামলা করছে। গত মঙ্গলবার রুশ বাহিনীর বোমাবর্ষণে ছয়জন নিহত হয়েছেন।

রুশ সেনারা যদি এখন পাশের লিসিচানস্ক শহরটিরও দখল নিয়ে নেয়, তাহলে পুরো লুহানস্ক অঞ্চল তাদের হাতে চলে যাবে। লুহানস্ক অঞ্চলের আঞ্চলিক প্রধান রুশ সেনাদের বিরুদ্ধে বেসামরিক অবকাঠামোর ওপর বোমা হামলার অভিযোগ এনেছেন। তিনি বলেন, সেভেরোদোনেৎস্কে ১৫ হাজার বেসামরিক লোকজন আশ্রয়শিবিরে ঠাঁই নিয়েছেন।

হাইদি বলেন, ‘তারা শহরটির দখল নিতে পারবে না বলেই পুরো ধ্বংস করে দিচ্ছে, যাতে আমাদের সেনারা শহর ছেড়ে চলে যায়।’

আরও পড়ুন : বাইডেনের এশিয়া ত্যাগের পরই উনের ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষা

জনপ্রিয়