গত এক বছরে সুইস ব্যাংকে বাংলাদেশিদের রেকর্ড পরিমাণে টাকা জমা

সংবাদটি প্রকাশিত হয়েছে : শুক্রবার, জুন ১৭, ২০২২ ১১:১৬:১৬ পূর্বাহ্ণ

চলমান বার্তা ডেস্ক:
সুইজারল্যান্ডের ব্যাংকগুলোতে বাংলাদেশি নাগরিকদের জমা করা টাকার পরিমাণ এক বছরের ব্যবধানে প্রায় তিন হাজার কোটি টাকা বেড়েছে। সুইজারল্যান্ডের কেন্দ্রীয় ব্যাংকের বার্ষিক প্রতিবেদনে এমন তথ্য পাওয়া গেছে।

প্রতিবেদনে দেখা গেছে, গত এক বছরে সুইস ব্যাংকে বাংলাদেশিদের নামে জমা টাকার পরিমাণ ৫৫ শতাংশ বেড়েছে। ২০২১ সালে সুইজারল্যান্ডের বিভিন্ন ব্যাংকে বাংলাদেশিদের গচ্ছিত অর্থের পরিমাণ দাঁড়িয়েছে ৮৭ কোটি ১১ লাখ সুইস ফ্রাঁ, যা বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় আট হাজার ২৭৫ কোটি টাকা। এর আগের বছর এ অর্থের পরিমাণ ছিল পাঁচ হাজার ৩৪৭ কোটি টাকা। সুইস ব্যাংকের বার্ষিক প্রতিবেদনে দেওয়া কয়েক বছরের পরিসংখ্যান অনুযায়ী, এ বৃদ্ধি এক বছরের ব্যবধানে সর্বাধিক। এ হিসাব অনুযায়ী, এক বছরে সুইস ব্যাংকে বাংলাদেশিদের জমা করা অর্থের পরিমাণ প্রায় তিন হাজার কোটি টাকা বেড়েছে।

সাম্প্রতিক সময়ে বাংলাদেশ থেকে বিদেশে অর্থপাচার নিয়ে আলোচনা-সমালোচনা চলছে। সে পটভূমিতে পাচার হওয়া অর্থ দেশে আনার উদ্দেশ্যে আগামী অর্থবছরের প্রস্তাবিত বাজেটেও কিছু সুযোগ রাখা হয়েছে।

সুইজার‍ল্যান্ডের আইন অনুযায়ী, দেশটির ব্যাংকগুলো তাদের গ্রাহকদের তথ্য প্রকাশ করতে বাধ্য নয়। গ্রাহকের জমা করা অর্থের উৎস সম্পর্কেও সুইস কর্তৃপক্ষ জানতে চায় না।

কয়েক বছর ধরে সুইজারল্যান্ডের কেন্দ্রীয় ব্যাংক তাদের বার্ষিক প্রতিবেদনে কোন দেশের নাগরিকেরা কত অর্থ জমা রাখছে তার পরিসংখ্যান দিচ্ছে, কিন্তু গ্রাহকদের তথ্য তারা গোপন রাখছে। এ গোপনীয়তার নীতির সুযোগ নিয়ে বিভিন্ন দেশের ধনী ব্যক্তিরা তাঁদের অর্থ সুইস ব্যাংকগুলোতে জমা রাখেন।

আরও পড়ুন : সিলেটে ভয়াবহ বন্যা

জনপ্রিয়