জুনের শেষে খুলছে পদ্মা সেতু : মন্ত্রিপরিষদ সচিব

সংবাদটি প্রকাশিত হয়েছে : বৃহস্পতিবার, মে ১৯, ২০২২ ৫:৫৯:১৮ অপরাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক:
আগামী জুন মাসের শেষের দিকে উদ্বোধন হতে যাচ্ছে পদ্মা সেতু। শেষ সপ্তাহের আগেই সেতুটি যান চলাচলের জন্য ‘রেডি’ হয়ে যাবে বলে জানিয়েছেন মন্ত্রিপরিষদ সচিব খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম।

আজ বৃহস্পতিবার মন্ত্রিসভার বৈঠক শেষে সচিবালয়ে ব্রিফিংয়ে এ তথ্য জানান মন্ত্রিপরিষদ সচিব। এর আগে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে তার সভাপতিত্বে এ বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়।

সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রিপরিষদ সচিব বলেন, ‘পদ্মা সেতু নিয়ে কথা হয়েছে (মন্ত্রিসভার বৈঠকে) এবং আজকে যেটা আলোচনা হয়েছে, আমার মনে হচ্ছে প্রধানমন্ত্রী নিজেই ক্লিয়ার করবেন আগামী ৪/৫/৬ দিনের মধ্যে জিনিসটা। পদ্মা সেতু জুন মাসের শেষে উদ্বোধন হচ্ছে, এটাতো উনি বলেই দিয়েছেন। আমরাও রেডি আছি, ইনশাহআল্লাহ। আশা করছি লাস্ট উইকের আগেই সেতু রেডি হয়ে যাবে।

এদিকে বাংলাদেশের ভ্যাকসিন কার্যক্রমের জন্য প্রশংসা করেছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা। আগামী বছরে স্বাস্থ্যখাতে ব্যয়ের জন্য বাংলাদেশকে ৯৪০ মিলিয়ন দিবে বিশ্ব ব্যাংক। মন্ত্রিপরিষদ সচিব ড. খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান।

হাটবাজার স্থাপন ও ব্যবস্হাপনা আইনের খসড়ায় নীতিগত অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা। আইনের খসড়ায় বলা হয়েছে, সরকারের অনুমোদন ছাড়া কোনো হাটবাজার বসানো যাবে না। সেক্ষেত্রে স্হায়ী হাটবাজারের জন্য জেলা প্রশাসকের অনুমতি লাগবে।

কেউ যদি সরকারের অনুমতি ছাড়া হাটবাজার বসায় তাহলে সেটা খাস জমি হিসেবে নিয়ে নিবে এবং ৫ লাখ টাকা জরিমানা এবং এক বছরের কারাদণ্ড দেওয়া হবে।

এছাড়া আজকের বৈঠকে ভূমি উন্নয়ন কর আইনের খসড়ায় নীতিগত অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। এর ফলে ২৫ বিঘা পর্যন্ত যাদের জমি আছে তাদের কর দিতে হবে না। এর বেশি হলেই পুরো জমির কর দিতে হবে। কারো যদি খাজনা দেওয়া ৩ বছর বাকি থাকে তাহলে প্রতি বছরের করের সাথে ৬.২ শতাংশ বেশি দিতে হবে।

আরও পড়ুন : সয়াবিন তেল শরীরের জন্য ক্ষতিকর : টিপু মুনশি

জনপ্রিয়