মিয়ানমার কথা না শুনলে জাতিসংঘে অভিযোগ : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

সংবাদটি প্রকাশিত হয়েছে : শনিবার, সেপ্টেম্বর ১৭, ২০২২ ৫:৪০:২৫ অপরাহ্ণ
ফাইল ফটো

চলমান বার্তা ডেস্ক:
স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেছেন, ‘আমরা কোনো ধরনের যুদ্ধ চাই না, শান্তিপূর্ণ সমাধান চাই। মিয়ানমারের সংঘাত যাতে আমাদের দেশে না আসে, সীমান্তে সেই ধরনের ব্যবস্থা নিতে বলেছি। তারা (মিয়ানমার) যদি কথা না শোনে তাহলে আমরা জাতিসংঘের কাছে অভিযোগ দেব।’

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আজ শনিবার দুপুরে ধানমন্ডিতে সাংবাদিকদের বিভিন্ন প্রশ্নের জবাবে এসব কথা বলেন।

আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেন, ‘সীমান্তে মিয়ানমারের ছোড়া মর্টারশেল নিক্ষেপের বিষয়টি কূটনৈতিকভাবে সমাধান করা হবে। এরই মধ্যে আমরা এ ঘটনার কড়া প্রতিবাদ করেছি। মিয়ানমারে সংঘর্ষের মধ্যে বাংলাদেশে যাতে কোনো রোহিঙ্গা প্রবেশ করতে না পারে সেজন্য বিজিবিকে সতর্ক অবস্থায় রাখা হয়েছে।’

এদিকে বান্দরবান জেলার নাইক্ষ্যংছড়ি সীমান্তে তুমব্রু এলাকায় মিয়ানমারের ছোড়া মর্টারশেল বিস্ফোরণে এক রোহিঙ্গার মৃত্যু ও পাঁচ জন আহত হওয়ার ঘটনায় আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়েছে সীমান্ত অঞ্চলে। এই পরিস্থিতিতে সীমান্তবর্তী ঘুমধুম উচ্চ বিদ্যালয়ের এসএসসি পরীক্ষা কেন্দ্রটি পার্শ্ববর্তী কক্সবাজার জেলার কুতুপালং বিদ্যালয়ে সরিয়ে নেওয়া হয়েছে। তবে শনিবার সকাল থেকে গোলাগুলি ও মর্টারশেল ছোড়ার কোনো শব্দ শোনা যায়নি বলে জানিয়েছেন স্থানীয়রা।

আইনশৃঙ্খলা বাহিনী ও স্থানীয় অধিবাসীরা জানায়, নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার ঘুমধুম ইউনিয়নের তুমব্রু সীমান্তের কোনাপাড়া নোম্যান্স ল্যান্ডের রোহিঙ্গা আশ্রয় কেন্দ্রের পাশে কোনাখাল এলাকায় ফের তিনটি মর্টারশেল এসে পড়েছিল শুক্রবার রাত ৮টায়। সীমান্তের এপারে এসে পড়েছিল ভারী অস্ত্রের গুলিও। এ সময় মর্টারশেল বিস্ফোরিত হয়ে রোহিঙ্গা শিশুসহ ছয়জন আহত হয়। আহতদের মধ্যে মো. ইকবাল নামে এক রোহিঙ্গার মৃত্যু হয়। আহত অন্য পাঁচজনের অবস্থাও গুরুতর। তারা কক্সবাজার হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। হতাহতরা সবাই কোনাপাড়া নোম্যান্স ল্যান্ডের রোহিঙ্গা আশ্রয় কেন্দ্রের বাসিন্দা।

আরও পড়ুন : করোনায় আরও দুইজনের মৃত্যু, শনাক্ত ৩৬৩

জনপ্রিয়