রাশিয়ার ফুটবল নিয়ে ফিফার কঠোর অবস্থান

সংবাদটি প্রকাশিত হয়েছে : সোমবার, ফেব্রুয়ারি ২৮, ২০২২ ১:৪১:১৩ অপরাহ্ণ

চলমান বার্তা ডেস্ক
ইউক্রেন-রাশিয়ার দ্বন্দ্বের উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়েছে ফুটবলে বিশ্বেও। ইউক্রেনের রাজধানী কিয়েভসহ বিভিন্ন অঞ্চলে রুশ সেনাদের সঙ্গে ইউক্রেনীয় সশস্ত্র বাহিনীর যুদ্ধের প্রতিবাদ জানাচ্ছে বিভিন্ন দেশ। রাশিয়ার হামলার এই প্রতিবাদে তাদের বিপক্ষে বিশ্বকাপের বাছাইপর্ব না খেলার ঘোষণা দিয়েছে প্যোলান্ডসহ কয়েকটি দেশ। এ ছাড়া চ্যাম্পিয়নস লিগের ভেন্যুও সরিয়ে নেওয়া হয়েছে। এবার রাশিয়াকে নিয়ে নিজেদের সিদ্ধান্ত জানাল ফুটবলের সর্বোচ্চ নিয়ন্ত্রক সংস্থা ফিফা।

ফিফার বিবৃতির বরাত দিয়ে আল জাজিরা জানিয়েছে, চলমান যুদ্ধের ইস্যুতে হোম ভেন্যুতে খেলতে পারবে না রাশিয়া। নিরপেক্ষ ভেন্যুতে খেললেও তারা সেখানেও গ্যালারিতে পাবে না দর্শক। এ ছাড়া খেলার সময় জাতীয় সঙ্গীত ছাড়াই মাঠের লড়াইয়ে নামতে হবে রাশিয়ান ফুটবলারদের।

ফিফার ঘোষণার পরও রাশিয়ার বিপক্ষে খেলতে নারাজ পোল্যান্ড। ইউক্রেন হামলার পর রাশিয়ার মাঠে বিশ্বকাপ বাছাইয়ের ম্যাচ না খেলার পক্ষে শক্ত অবস্থান নিয়েছে পোল্যান্ড, সুইডেন ও চেক রিপাবলিক। এবার ভিন্ন ভেন্যুতে খেলার ব্যাপারেও নারাজ তারা।

ফিফার বিবৃতি মেনে নেননি পোল্যান্ড ফুটবল অ্যাসোসিয়েশনের প্রেসিডেন্ট চেজারি কুলেসজা। তিনি এটিকে একেবারে অগ্রহণযোগ্য হিসেবে ব্যাখ্যা করেছেন।

নিজেদের অবস্থান স্পষ্ট করে এক টুইট বার্তায় কুলেসজা বলেন, ‘আমরা এই ম্যাচে অংশ নিতে আগ্রহী নই। আমাদের অবস্থান আগের মতোই, দলের নাম যাই হোক না কেন, পোল্যান্ড জাতীয় দল রাশিয়ার সঙ্গে খেলবে না।’

আগামী ২৪ মার্চ মস্কোতে রাশিয়ার বিপক্ষে বাছাইপর্বের ম্যাচ খেলার কথা ছিল পোল্যান্ডের। এই ম্যাচ এখন খেলতে চায় না পোল্যান্ড।

এর আগে গার্ডিয়ানের প্রতিবেদন অনুসারে পোল্যান্ড ফুটবল অ্যাসোসিয়েশনের প্রধান চেজারি কুলেসজা বলেন, ‘আর কোনো কথা নয়, এবার কাজ করে দেখানোর সময়। রাশিয়ার ইউক্রেনের ওপর আক্রমণের প্রতিবাদে আমরা বাছাইপর্বের ম্যাচে তাদের বিপক্ষে না খেলার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। এটাই একমাত্র সঠিক সিদ্ধান্ত।’

আরো পড়ুন : ১০ পয়েন্ট খুবই গুরুত্বপূর্ণ : মিরাজ

জনপ্রিয়