আগামীকাল থেকে শুরু বিসিক ও বাংলা একাডেমীর  ১০ দিনব্যাপী বৈশাখী মেলা

সংবাদটি প্রকাশিত হয়েছে : বুধবার, এপ্রিল ১০, ২০১৯ ১২:২১:১৯ অপরাহ্ণ

বাংলা নববর্ষ উদযাপন উপলক্ষ্যে বাংলাদেশ ক্ষুদ্র ও কুটির শিল্প করপোরেশন (বিসিক) অন্যান্য বছরের মত এবারও বৈশাখী মেলা-১৪২৬ এর আয়োজন করতে যাচ্ছে। এবার মেলা অতিক্রম করবে ৪১ তম বছর। বিসিক ও বাংলা একাডেমীর যৌথ উদ্যোগে বাংলা একাডেমী চত্বরে আগামী ২৮ চৈত্র ১৪২৫ (১১ এপ্রিল ২০১৯) হতে ১০ দিনব্যাপী এ মেলা শুরু হবে। মেলা আয়োজনের লক্ষ্যে বর্তমানে স্টল নির্মাণ কাজসহ অন্যান্য সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন হয়েছে। অন্যান্য বছরের মতো এবারও এ মেলায় আমাদের ঐতিহ্যবাহী বহুবিধ কুটির ও হস্ত শিল্পজাত পণ্যের সমারোহ ঘটবে।

যে সকল উদ্দেশ্যকে সামনে রেখে বিসিক ঢাকায় বৈশাখী মেলাসহ দেশের অন্যান্য স্থানে বিভিন্ন মেলার আয়োজন করে আসছে তা হলো: ১) দেশের ক্ষুদ্র, কুটির ও হস্ত শিল্প খাতের উদ্যোক্তাদের উৎপাদিত পণ্যসামগ্রীর বাজার সৃষ্টিতে সহায়তা প্রদান, ২) শহুরে ও বিদেশীদের সামনে গ্রামীণ পণ্যের পরিচিতি ঘটানো এবং ৩) নতুন নতুন নকশা ও নমুনার সাথে কারুশিল্পীদের পরিচিত করা। এসব কারণে বৈশাখী মেলা ইতোমধ্যে রাজধানীবাসীর মাঝে অন্যতম আকর্ষণে পরিনত হয়েছে।

মেলায় দেশের বিভিন্ন অঞ্চলের ক্ষুদ্র, কুটির ও হস্তশিল্প খাতের উদ্যোক্তা এবং কারুশিল্পীদের উৎপাদিত পণ্যসামগ্রী প্রদর্শনও কেনা- বেচার পাশাপাশি দেশের আবহমান গ্রাম বাংলার সুপ্রাচীন সাংস্কৃতিক ঐতিহ্যেরও বহিঃপ্রকাশ ঘটবে। মেলায় কুটির, হস্ত ও কারুশিল্পীদের হাতে তৈরি বাঁশ ও বেতের পণ্য, মৃৎশিল্প, পাটপণ্য, নকশি কাঁথা, শতরঞ্চি, বাঁশের বাঁশি, কাঠজাতপণ্য, গৃহের সাজ-সজ্জারপণ্য, গহণা, রকমারী চুড়ি, পুতিরমালা, ঝিনুকেরপণ্য, জামদানী ও তাঁতের শাড়ি ইত্যাদি পণ্য সামগ্রী ছাড়াও থাকবে নানা রকম কদমা-বাতাসা, মন্ডা-মিঠাই। মেলায় এসব পণ্যসামগ্রী নিয়ে প্রায় ২০০টি স্টলে পসরা সাজিয়ে বসবেন হস্ত ও কারুশিল্পীরা। তাছাড়া মেলায় ১০টি স্টলে বসে কারুশিল্পীরা তাদের নিপুন হাতে নানা রকম কুটির ও হস্তশিল্পজাত পণ্যসামগ্রী তৈরি, প্রদর্শন ও বিক্রয় করবেন।

শিল্পমন্ত্রী জনাব নূরুল মজিদ মাহমুদ হূমায়ূন এমপি, প্রধান অতিথি হিসেবে মেলার উদ্বোধন করবেন। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন শিল্প প্রতিমন্ত্রী কামাল আহমেদ মজুমদার এমপি, সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী কে এম খালিদ এমপি, শিল্প মন্ত্রণালয়ের সচিব মোঃ আবদুল হালিম, ও সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব ড. মোঃ আবু হেনা মোস্তফা কামাল এনডিসি। সভাপতিত্ব করবেন বিসিক চেয়ারম্যান মোঃ মোশতাক হাসান, এনডিসি। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখবেন বাংলা একাডেমির মহাপরিচালক হাবিবুল্লা সিরাজি।

মেলার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে থাকবে বিশেষ সাংস্কৃতিক ও নৃত্যানুষ্ঠান। মেলা চলাকালে প্রতিদিন সন্ধ্যায় অনুষ্ঠিত হবে লোকসাংস্কৃতির নানা অনুষ্ঠান। এতে দেশের বিভিন্ন অঞ্চলের ঐতিহ্যবাহী লোকসংগীতসহ অন্যান্য গান পরিবেশিত হবে।

বৈশাখী মেলা ৭ বৈশাখ ১৪২৬ (২০ এপ্রিল ২০১৯) পর্যন্ত প্রতিদিন সকাল ১০টা থেকে রাত ৯টা পর্যন্ত সর্বসাধারণের জন্য উন্মুক্ত থাকবে। সংবাদ বিজ্ঞপ্তি

আরও পড়ুন: এসি এক্সচেঞ্জ অফারের মেয়াদ বাড়ালো ওয়ালটন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

জনপ্রিয়