২০২৩ সালে ফ্রান্স-জার্মানির যুদ্ধ, গৃহযুদ্ধ হবে যুক্তরাষ্ট্রে : মেদভেদেভ

সংবাদটি প্রকাশিত হয়েছে : বুধবার, ডিসেম্বর ২৮, ২০২২ ১০:৫৮:৩০ পূর্বাহ্ণ

চলমান বার্তা অনলাইন ডেস্ক:
আগামী বছর অর্থাৎ ২০২৩ সালে ইউরোপের অন্যতম দুই শক্তিধর দেশ ফ্রান্স এবং জার্মানির মধ্যে যুদ্ধ শুরু হবে বলে ভবিষ্যদ্বাণী করেছেন রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের ঘনিষ্ঠ সহযোগী ও দেশটির সাবেক প্রেসিডেন্ট দিমিত্রি মেদভেদেভ।

একই সময়ে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রেও গৃহযুদ্ধের ভবিষ্যদ্বাণী করেছেন তিনি; যে যুদ্ধ দেশটির ধনকুবের এলন মাস্ককে মার্কিন প্রেসিডেন্ট বানিয়ে দেবে। এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স।

বর্তমানে পুতিনের উপদেষ্টা নিরাপত্তা পরিষদের উপ-প্রধান মেদভেদেভ। রাশিয়ায় চার বছর মেয়াদে পুতিন যখন প্রধানমন্ত্রীর দায়িত্ব পালন করেছিলেন, সেই সময় প্রেসিডেন্ট ছিলেন মেদভেদেভ।

সোমবার সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম টুইটার ও নিজের টেলিগ্রাম চ্যানেলে ২০২৩ সালের ভবিষ্যদ্বাণীর একটি তালিকা প্রকাশ করেছেন তিনি। সেই তালিকায় আগামী বছর ফ্রান্স-জার্মানির যুদ্ধ এবং মার্কিন গৃহযুদ্ধের সম্ভাবনার কথা তুলে ধরেছেন মেদভেদেভ।

তিনি ২০২৩ সালে ইউরোপীয় ইউনিয়নে (ইইউ) পুনরায় ব্রিটেনের যোগদানের পূর্বাভাসও করেছেন। তবে শেষ পর্যন্ত ইইউ ভেঙে যাবে বলে মন্তব্য করেছেন সাবেক এই রুশ প্রেসিডেন্ট।

মার্কিন বৈদ্যুতিক গাড়ি নির্মাতা প্রতিষ্ঠান টেসলার প্রধান এলন মাস্ক এখন টুইটারেরও মালিক। মার্কিন প্রেসিডেন্ট হিসেবে তিনি আবির্ভূত হবেন বলে মেদভেদেভ যে টুইট করেছেন তার জবাব দিয়েছেন টুইটারে। মাস্ক লিখেছেন, ‘এপিক থ্রেড।’

যদিও মেদভেদেভের কিছু ভবিষ্যদ্বাণীর সমালোচনা করেছেন মাস্ক। অতীতে শান্তি চুক্তির মাধ্যমে ইউক্রেনের ভূখণ্ড রাশিয়াকে দেওয়ার প্রস্তাব করার জন্য মাস্কের প্রশংসাও করেছেন মেদভেদেভ।

গত ২৪ ফেব্রুয়ারি ইউক্রেনে রাশিয়ার সামরিক অভিযান শুরুর পর থেকে পুতিনের শীর্ষ এই সহযোগী বিভিন্ন ধরনের বিতর্কিত মন্তব্য করেছেন; যা নিয়ে পশ্চিমা গণমাধ্যমে ব্যাপক সমালোচনাও হয়েছে। কিছুদিন আগে ইউক্রেনীয়দের তিনি ‘তেলাপোকা’ বলে অভিহিত করেছিলেন।

আরও পড়ুন : লুকাশেঙ্কোর সঙ্গে ২৪ ঘণ্টায় পুতিনের দুইবার বৈঠক

জনপ্রিয়